৩ মার্চ (২০১৭) সিলেটের শ্রমিকনেতা আবুল কালাম আজাদ এর মৃত্যুবার্ষিকী

17358569_2257958254430110_332434529170090719_o

৩ মার্চ (২০১৭) সাম্রাজ্যবাদ সামন্তবাদ আমলা দালালপুঁজি বিরোধী আপোষহীন শ্রমিকনেতা, সিলেট জেলা হোটেল শ্রমিক ইউনিয়ন এর সাবেক সভাপতি, বাংলাদেশ ট্রেড ইউনিয়ন সংঘ সিলেট জেলা শাখার সহ-সভাপতি, বাংলাদেশ হোটেল রেস্টুরেন্ট সুইটমিট শ্রমিক ফেডারেশন এর কেন্দ্রীয় যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক এবং জাতীয় গণতান্ত্রিক ফ্রন্ট সিলেট জেলা শাখার প্রচার সম্পাদক আবুল কালাম আজাদ এর মৃত্যুবার্ষিকী

 

আবুল কালাম আজাদ ১৯৬৮ সালের ২৫ জুন জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতার নাম মো: ইদ্রিছ আলী এবং মাতার নাম কমলা বেগম। আবুল কালাম আজাদ একজন মেধাবী ছাত্র হওয়ার সত্ত্বেও পারিবারিক আর্থিক অভাবের কারণে ৫ম শ্রেণির পর আর পড়ালেখা করতে পারেন নি। একজন হোটেল শ্রমিক হিসেবে আবুল কালাম আজাদ তার কর্মজীবন শুরু করেন। ১৯৯৩ সাল থেকে একজন সাধারণ শ্রমিক হিসেবে সিলেট জেলা হোটেল শ্রমিক ইউনিয়ন এর সাথে যুক্ত হয়ে সংগঠন সংগ্রাম গড়ে তোলার ক্ষেত্রে আগ্রণী ভূমিকা পালন করেন। সংগঠনের একজন সদস্য থেকে শুরু করে বিভিন্ন পদসহ একাধিকবার সাধারণ সম্পাদক ও সভাপতির দায়িত্ব পালন করেন। সাধারণ শ্রমিকের অধিকার আদায়ে দৃঢ় নেতৃত্ব এবং শ্রমিকদের প্রতি স্নেহ ও ভালোবাসার জন্য সিলেটের সীমানা পেরিয়ে সারা দেশের হোটেলসহ বিভিন্ন সেক্টরের শ্রমিকদের প্রাণপ্রিয় নেতায় পরিণত হন। শ্রমিকনেতা আবুল কালাম আজাদ আমৃত্যু হোটের শ্রমিকদের অধিকার প্রতিষ্ঠার আন্দোলন সংগ্রামের পাশাপাশি শ্রমিক কৃষক মেহনতি মানুষের মুক্তির লক্ষ্যে সংগঠন সংগ্রাম করে গেছেন।সিলেট শহরতলীর চামেলীবাগ (ইসলামপুর) আবাসিক এলাকার বাসিন্দা আবুল কালাম আজাদ দীর্ঘ দিন যাবৎ ক্যান্সার আক্রান্ত ছিলেন এবং কেমো থেরাপি শেষে রেডিও থেরাপি’র চিকিৎসা চলা অবস্থায় ৩ মার্চ ২০১৭ বিকেল ৩.৪৫ টা সময় মৃত্যুবরণ করেন। মৃত্যুকালে দুই ছেলে ও দুই মেয়েসহ অসংখ্য আত্মীয়স্বজন রেখে গেছেন। তাঁর বড় মেয়ে অনার্স তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী।

Please follow and like us:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *