৯ জুন ২০১৮ শনিবার সকাল ১১টায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে জাতীয় ও জনস্বার্থ বিরোধী প্রস্তা‌বিত ২০১৮-১৯ অর্থ বছ‌রের বাজেট প্রত্যাখ্যান করে জাতীয় গণতান্ত্রিক ফ্রন্ট-এর বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত

09-06-18

তারিখ ঃ ০৯/০৬/২০১৮  প্রেসবিজ্ঞপ্তি
জাতীয় ও জনস্বার্থ বিরোধী বাজেট প্রত্যাখ্যান করে বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত

৯ জুন ২০১৮ শনিবার সকাল ১১টায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে জাতীয় ও জনস্বার্থ বিরোধী প্রস্তা‌বিত ২০১৮-১৯ অর্থ বছ‌রের বাজেট প্রত্যাখ্যান করে জাতীয় গণতান্ত্রিক ফ্রন্ট-এর বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন জাতীয় গণতান্ত্রিক ফ্রন্ট-এর সহ-সভাপতি হাবিব উল্লা বাচ্চু। বক্তব্য রাখেন জাতীয় গণতান্ত্রিক ফ্রন্ট-এর সহ-সাধারণ সম্পাদক মোঃ ইয়াসিন ও প্রকাশ দত্ত। বক্তারা বলেন, স্বৈরাচারী রাষ্ট্র ব্যবস্থায় সাম্রাজ্যবাদ ও তার দালালদের স্বার্থ রক্ষাকারী সকল সরকারের বাজেটই জাতীয় ও জনস্বার্থ বিরোধী। বিশ্বব্যাংক, আইএমএফ-এর দিকনির্দেশনার ভিত্তিতে সাম্রাজ্যবাদ ও তার দালালদের স্বার্থকে অগ্রাধিকার দিয়ে আমাদের দেশের বাজেট প্রণয়ন হয়ে থাকে। তাই এবারের বাজেট প্রণয়নে এসডিজি’র লক্ষ্য বাস্তবায়নের বিষয়টি গুরুত্ব পাবে। ফলে সাম্রাজ্যবাদী লগ্নিপুঁজি ও তার দালাল পুঁজির শোষণ আরো তীব্র হবে এবং ধনী-দরিদ্রের বৈষম্য আরো বৃদ্ধি পেয়ে সামাজিক অস্থিরতাকে আরো বাড়িয়ে তুলবে। শুধু তাই নয় বাজেটের আকার বৃদ্ধির সাথে সাথে বৃদ্ধি পাচ্ছে ভ্যাট, ট্যাক্সসহ প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষ করের বোঝা। একইসাথে বাজেট পূর্ণাঙ্গ বাস্তবায়ন না হলেও জনগণের কাছ থেকে ঠিকই জবরদস্তি করে ভ্যাট-ট্যাক্সসহ বিভিন্ন ধরনের কর আদায় করা হয়। শুধু তাই নয় অর্থ বছরের শেষের দিকে এসে উন্নয়ন বাজেট বাস্তবায়নের নামে সরকার দলীয় এমপি-মন্ত্রী, নেতা-কর্মি, আমলাদের লুটপাটের এক মহাউৎসব চলে। নেতৃবৃন্দ ব্যাংক সেক্টর নিয়ে অর্থমন্ত্রীর বক্তব্যের সমালোচনা করে বলেন, তার বক্তব্যের মধ্য দিয়ে ব্যাংকিং সেক্টরে লুটপাটকারীদের পক্ষেই তিনি অবস্থান নিয়েছেন। যা মূলত সরকারেরই অবস্থান। অন্যদিকে সকল বাজেটেই আমাদের দেশের কৃষি, শিল্প, শিক্ষা, স্বাস্থ্যসহ জাতীয় ও জনস্বার্থের মত গুরুত্বপূর্ণ বিষয়গুলো শুধু উপেক্ষিত হয় না সাম্রাজ্যবাদী প্রভুর স্বার্থে লগ্নিপুঁজির সর্বোচ্চ মুনাফার হাতিয়ারে পরিণত হচ্ছে। কিন্তু প্রতিরক্ষা খাতের বাজেট দিন দিন বৃদ্ধি পেয়ে চলেছে। সবশেষে নেতৃবৃন্দ বলেন, বাজেটে জাতীয় ও জনস্বার্থ রক্ষার পূর্ব শর্ত হচ্ছে জাতীয় গণতান্ত্রিক রাষ্ট্র ও সমাজ ব্যবস্থা। আজ তাই সকল সাম্রাজ্যবাদ বিরোধী গণতান্ত্রিক শক্তির দায়িত্ব হচ্ছে প্রচলিত স্বৈরাতান্ত্রিক রাষ্ট্র ব্যবস্থা পরিবর্তনের লক্ষ্যে সংগ্রাম বেগবান করা।

বার্তাপ্রেরক
আতিকুল ইসলাম টিটু
সদস্য
কেন্দ্রীয় কমিটি
০১৯১৪৯০৯২৬৩

Please follow and like us:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *